প্রধান বিদ্যুৎ পরিদর্শকের দপ্তর বিদ্যুৎ বিভাগ, বিদ্যুৎ জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রণালয়
মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
সর্ব-শেষ হাল-নাগাদ: ২৬ জানুয়ারি ২০২০

এক নজরে

আধুনিক সভ্যতার জন্য বিদ্যুতের প্রয়োজন অপরিহার্য। এই বিদ্যুৎ ব্যবহারের জন্য নিরাপত্তা নিশ্চিতকরণের গুরুত্বও অনেক। কেননা প্রতি বছর বৈদ্যুতিক দুর্ঘটনার কারণে সম্পদসহ বহু জীবনহানি হয়।আর সেই কারণেই বিদ্যুৎ উৎপাদনসঞ্চালনবিতরণসরবরাহ  ব্যবহারের নিরাপত্তা নিশ্চিতকরণের লক্ষ্যে ১৯১০ সালে ইলেকট্রিসিটি এ্যাক্ট প্রণয়ন হয়।উক্ত এ্যাক্টের ৩৬ ধারা বলে বৈদ্যুতিক উপদেষ্টা  প্রধান বিদ্যুৎ পরিদর্শক এর দপ্তর সৃষ্টি হয়। দপ্তরটি বাংলাদেশ সরকারের বিদ্যুৎজ্বালানী  খনিজ সম্পদ মন্ত্রণালয়ের বিদ্যুৎ বিভাগ এর নিয়ন্ত্রণাধীন। এনাম কমিটি কর্তৃক সুপারিশকৃত ও অনুমোদিত সাংগঠনিক কাঠামোর আওতায় অত্র দপ্তরে ৮ জন কর্মকর্তা ও ২৫ জন কর্মচারী সহ মোট ৩৩টি পদ রয়েছে। সেবার মান অধিকতর উন্নয়ন ও দ্রুততর করণের লক্ষ্যে ও সরকারের রাজস্ব আয় বৃদ্ধির স্বার্থে নতুন আরও ১২টি পদ ০৪ মে, ২০১৪ ইং তারিখে চুড়ান্তভাবে অনুমোদিত হয়েছে। বর্তমানে অত্র দপ্তরে নতুন অর্গানোগ্রাম অনুযায়ী জনবল বৃদ্ধিপেয়ে দাড়িয়েছে মোট ৪৫ জন। তন্মধ্যে ১৬ জন কর্মকর্তা এবং ২৯জন কর্মচারী অন্তর্ভূক্ত আছেন।

নিরাপত্তার ক্ষেত্রে উচ্চ  মধ্যম চাপের বৈদ্যুতিক সংযোগ অনুমোদনবৈদ্যুতিক কারিগরীসুপারভাইজার সনদ  ঠিকাদারী লাইসেন্স ইস্যু দপ্তরটির মূল কাজ।কাজসমূহের জন্য সরকার নির্ধারিত ফিস আদায় করে সরকারের রাজস্ব আয়ে দপ্তরটির ভূমিকা রয়েছে। এ দপ্তরটি প্রশাসন, হিসাব, পরিদর্শন এবং বিদ্যুৎ লাইসেন্স বোর্ড শাখার মাধ্যমে কার্যক্রম সুষ্ঠভাবে পরিচালনা করে আসছে।


Share with :

Facebook Facebook